অগ্নিদগ্ধ প্রতিবন্ধী পেলেন সরকারি সহায়তা

আপডেট: 09:19:16 09/08/2020



img

মণিরামপুর (যশোর) প্রতিনিধি : মণিরামপুরে আগুনে পুড়ে যাওয়া মমিনুর রহমান (২৬) নামে এক যুবক সরকারি সহায়তা পেয়েছেন।
রোববার (৯ আগস্ট) বিকেলে জেলা প্রশাসকের পক্ষ থেকে ওই যুবকের বাবার হাতে ১৫ হাজার টাকার চেক তুলে দেন ইউএনও সৈয়দ জাকির হাসান। এসময় রোহিতা ইউপি চেয়ারম্যান আবু আনছার সরদার, ইউপি সচিব কৃষ্ণগোপাল মুখার্জী, ইউপি সদস্য মনিরুল ইসলাম প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।
মমিনুর রহমান উপজেলার কোদলাপাড়া গ্রামের রমজান আলীর ছেলে। মমিনুর বুদ্ধি প্রতিবন্ধী। আর তার বাবা রমজান আলী পঙ্গু।
ইউপি সচিব কৃষ্ণগোপাল মুখার্জী বলেন, গত আট জুলাই মায়ের সঙ্গে অভিমান করে গায়ে পেট্রোল ঢেলে নিজের গায়ে আগুন ধরিয়ে দেন মমিনুর। এতে তার বুক থেকে মুখ পর্যন্ত ঝলসে যায়।
ইউপি সচিব বলেন, ‘আর্থিকভাবে অসচ্ছল হওয়ায় ছেলের চিকিৎসা করাতে পারছেন না রমজান। ফলে বিনা চিকিৎসায় ঘরের বারান্দায় পড়ে আছে মমিনুর। মমিনুরের দেহের পোড়া অংশে পচন ধরেছে। আমি বিষয়টি ইউএনও সৈয়দ জাকির হাসান স্যারকে জানিয়েছি। পরে রমজান আলীর আবেদনের ভিত্তিতে ইউএনও জেলা প্রশাসক স্যারের সাথে কথা বলে ১৫ হাজার টাকা পাইয়ে দেওয়ার ব্যবস্থা করেন।’
মণিরামপুর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা সৈয়দ জাকির হাসান বলেন, ‘অগ্নিদগ্ধ যুবকের বাবা আর্থিক সহায়তা চেয়ে আবেদন করেছিলেন। সেই আবেদনের ভিত্তিতে জেলা প্রশাসক স্যারের পক্ষ থেকে ১৫ হাজার টাকার চেক বিতরণ করা হয়েছে।’

আরও পড়ুন