‘অবরুদ্ধ’ খুলনায় বিএনপির মহাসমাবেশ

আপডেট: 04:03:01 27/02/2021



img

খুলনা অফিস : পুলিশি বাধা উপেক্ষা করে খুলনায় বিএনপির মহাসমাবেশ শুরু হয়েছে।
ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের মেয়র প্রার্থী ইশরাক হোসেনসহ দলটির কেন্দ্রীয় নেতারা মঞ্চে উঠেছেন। কেন্দ্রীয় ভাইস চেয়ারম্যান ব্যারিস্টার শাহজাহান ওমর, শামসুজ্জামান দুদু, নিতাই রায়চৌধুরী, মজিবর রহমান সরোয়ারসহ স্থানীয় নেতারাও মঞ্চে রয়েছেন।
এদিকে, বিএনপির মহাসমাবেশকে কেন্দ্র করে নগরজুড়ে অচলাবস্থার সৃষ্টি হয়েছে। সকাল থেকে নগরীর ছয় নম্বর কেডি ঘোষ রোডে খুলনা বিএনপির দ কার্যালয় ঘিরে রাখে পুলিশ। দুপুরের পর শর্তসাপেক্ষে মৌখিক অনুমতি দিলেও শত শত পুলিশ চতুর্দিক দিয়ে ব্যারিকেড তৈরি করে রাখে। প্রস্তুত রাখা হয়েছে জলকামানসহ অন্যান্য সরঞ্জাম।
এছাড়া নগরীর সব প্রবেশমুখে পুলিশি চেকপোস্ট বসানো হয়েছে। মোটরসাইকেলযোগেও কাউকে ঢুকতে দেওয়া হচ্ছে না। শুক্রবার সন্ধ্যা থেকে সব ধরনের দূরপাল্লার বাস বন্ধ রয়েছে।
খুলনা থেকে বিভিন্ন জেলার ১৮টি রুটে সব ধরনের পরিবহন চলাচল বন্ধ রয়েছে। জেলার কয়রা উপজেলার মদিনাবাদ, জোড়শিং ও সাতক্ষীরার নীলডুমুর- এ তিনটি রুটে লঞ্চ চলাচল সাময়িক স্থগিত করা হয়েছে। এছাড়া শনিবার সকাল থেকে পূর্ব-পশ্চিম রূপসা ঘাট এবং জেলখানা ও সেনেরবাজার ঘাটে ট্রলার পারাপার বন্ধ রাখার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন ট্রলার মাঝিরাও।
খুলনা মহানগর বিএনপির সভাপতি নজরুল ইসলাম মঞ্জু অভিযোগ করে বলেন, পরিবহন মালিকদের ডেকে নিয়ে খুলনার ১৮ রোডের সব গাড়ি চলাচল ২৪ ঘণ্টা বন্ধ রাখার নির্দেশ দিয়েছে পুলিশ। যদিও পুলিশ এই অভিযোগ মানতে নারাজ।
সুষ্ঠু ও গ্রহণযোগ্য নির্বাচনের দাবিতে, শহীদ রাষ্ট্রপতি জিয়াউর রহমানের বীর উত্তম খেতাব বাতিলের ষড়যন্ত্রের প্রতিবাদে এবং খালেদা জিয়ার মুক্তির দাবিতে দেশের ছয় সিটিতে মেয়র প্রার্থীদের নেতৃত্বে মহাসমাবেশের ঘোষণা দেয় বিএনপি। সেই অনুযায়ী ২৭ ফেব্রুয়ারি খুলনা সিটিতে মহাসমাবেশের নির্ধারিত দিন।
এ মহাসমাবেশে প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য দেবেন বিএনপির ভাইস-চেয়ারম্যান ব্যারিস্টার শাহজাহান ওমর বীর উত্তম। বিশেষ অতিথি থাকবেন বিএনপির সিনিয়র ভাইস চেয়ারম্যান শামসুজ্জামান দুদু, ভাইস চেয়ারম্যান নিতাই রায়চৌধুরী ও যুগ্ম মহাসচিব মোয়াজ্জেম হোসেন আলাল। এছাড়া প্রধান বক্তা ছয় সিটির মেয়র প্রার্থীরা।

আরও পড়ুন