মোল্লা হাসান আফগানিস্তানের নয়া প্রধানমন্ত্রী!

আপডেট: 03:32:18 08/09/2021



img

সুবর্ণভূমি ডেস্ক: আফগানিস্তানের নতুন তালেবান সরকারের প্রধানমন্ত্রী হতে পারেন মোল্লা হাসান আখুন্দ। অপেক্ষাকৃত স্বল্প পরিচিত হলেও দীর্ঘদিন ধরেই দলটির রাজনীতিতে যুক্ত রয়েছেন তিনি। তালেবানের আগের সরকারেও মন্ত্রীর দায়িত্ব পালন করেছেন তিনি। জাতিসংঘের সন্ত্রাসী তালিকাতেও নাম রয়েছে তার। মঙ্গলবার সূত্রের বরাত দিয়ে এক প্রতিবেদনে এ খবর জানিয়েছে ভারতীয় সংবাদমাধ্যম এনডিটিভি।
আরেক ভারতীয় সংবাদমাধ্যম টাইমস অব ইন্ডিয়া জানিয়েছে, নতুন সরকারের প্রধান হিসেবে এরইমধ্যে মোল্লা হাসান আখুন্দকে মনোনয়ন দিয়েছেন তালেবান প্রধান শেখ হাইবাতুল্লাহ আখুন্দজাদা। একই রকমের খবর দিয়েছে পাকিস্তানভিত্তিক সংবাদমাধ্যম জিও নিউজ।
তালেবানের একজন ঊর্ধ্বতন নেতার বরাত দিয়ে টাইমস অব ইন্ডিয়ার প্রতিবেদনে বলা হয়, ‘আমিরুল মুমিনিন শেখ হাইবাতুল্লাহ আখুন্দজাদা নিজেই মোল্লা মোহাম্মদ হাসান আখুন্দকে রইস-ই-জামহুর বা রইস-উল-ওয়াজারা বা আফগানিস্তানের নতুন রাষ্ট্রপ্রধান হিসেবে প্রস্তাব করেছেন। মোল্লা বারাদার এবং মোল্লা আব্দুস সালাম তার ডেপুটি হিসেবে কাজ করবেন।’
২০২১ সালের ১৫ আগস্ট কাবুলের নিয়ন্ত্রণ লাভের মধ্য দিয়ে আফগানিস্তানের ক্ষমতা দখল করে তালেবান। বিমানভর্তি টাকা নিয়ে দেশ ছেড়ে পালিয়ে যান তৎকালীন প্রেসিডেন্ট আশরাফ গণি। এরইমধ্যে সরকার গঠনের প্রক্রিয়া শুরু করেছে তালেবান। সরকার গঠনের অনুষ্ঠানে যোগ দিতে তুরস্ক, চীন, রাশিয়া, ইরান, পাকিস্তান ও কাতারকে আমন্ত্রণ জানানো হয়েছে।
যুক্তরাজ্যভিত্তিক সংবাদমাধ্যম বিবিসি জানিয়েছে, নতুন সরকার গঠন এখন সময়ের ব্যাপার মাত্র। তালেবানের মুখপাত্র জবিউল্লাহ মুজাহিদ জানিয়েছেন, গুরুত্বপূর্ণ সব সিদ্ধান্ত এরইমধ্যে নেওয়া হয়ে গেছে। এখন টেকনিক্যাল কিছু বিষয় নিয়ে কাজ করা হচ্ছে।
এ পর্যন্ত পাওয়া তথ্য অনুযায়ী, ইরানের ধাঁচে সরকার গঠন করতে পারে তালেবান। সেক্ষেত্রে দলের শীর্ষ নেতা হাইবাতুল্লাহ আখুন্দজাদা ‘সর্বোচ্চ নেতা’ হতে পারেন। তবে আনুষ্ঠানিক ঘোষণার আগে কোনও কিছুই নিশ্চিত করা বলা সম্ভব নয়। টাইমস অব ইন্ডিয়া

আরও পড়ুন