পাচারের শিকার ৩৬ বাংলাদেশি ফিরবে

আপডেট: 07:41:36 13/09/2021



img

স্টাফ রিপোর্টার, বেনাপোল (যশোর): দালালের মাধ্যমে সীমান্তের অবৈধপথে বিভিন্ন সময় ভাল কাজের প্রলোভনে ভারতে পাচার হওয়া ৩৬ বাংলাদেশি নারী-পুরুষ ও শিশুকে উদ্ধারের পর ফেরত পাঠাবে ভারত।
ইতোমধ্যে হস্তান্তরের বিষয়ে বেনাপোল ইমিগ্রেশন পুলিশসহ সরকারে বিভিন্ন দপ্তরে পত্র পাঠানো হয়েছে। এসব নারী-পুরুষ ও শিশুর বাড়ি বাংলাদেশের বিভিন্ন জেলায়। এদের সকলের বয়স ১২-১৮ বছরের মধ্যে। ২-৩ বছর আগে তারা দেশের বিভিন্ন সীমান্ত পথে ভারতে পাচারের শিকার হয় বলে সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা যায়।
আগামী ২০ সেপ্টেম্বর বেলা ১২টায় বেনাপোল ইমিগ্রেশন পুলিশের কাছে তাদের হস্তান্তর করা হতে পারে বলে জানা গেছে।
পাচার প্রতিরোধ নিয়ে কাজ করা এনজিও সংস্থা জাস্টিস অ্যান্ড কেয়ার এসব নারী, শিশুদের আইনি সহায়তা আর কর্মসংস্থান সৃষ্টির লক্ষ্যে গ্রহণ করবে পুলিশের কাছ থেকে।
উদ্ধারের তালিকায় থাকারা হচ্ছে কুমিল্লার সাহান হাওলাদার, খুলনার আনন্দ মন্ডল, মুস্তাফিজুর রহমান, শিমুল শেখ, আবুল হাসান ও মোস্তফা গাজী, যশোরের আয়শা শেখ, জেসমিন বিবি, রুহুল হোসেন, রাকিব শেখ, শাকিল শেখ ও শাকিব হাসান, গোপালগঞ্জের জোবায়ের সরদার, বাগেরহাটের লাবনি আক্তার, রহিমা খান, রাকিব, শাহিল ফারাজি, আবু সালে শেখ, শহিদুল, রাকিব হাওলাদার, মুন্সিগঞ্জের আরিন বাইদা, সাতক্ষীরার মাজেদা খাতুন, সুশান্ত মন্ডল, হালিমা খাতুন, ঠাকুরগাঁওয়ের নিত্যনন্দ রায়, রাজবাড়ির প্রিয়বালা, সুনামগঞ্জের আমেনা খাতুন, পিরোজপুরের মুক্তা আক্তার, নড়াইলের নিশা আক্তার, আবু বক্কর, বিধি খাতুন, রাজশাহীর রোমী খাতুন, ফরিদপুরের নারগিস খাতুন, বরিশালের জুয়েল সরদার ও কুড়িগ্রামের শাহজালাল।

আরও পড়ুন