ঝিনাইদহে ঐতিহ্যবাহী গরুর গাড়ির দৌড় অনুষ্ঠিত

আপডেট: 07:53:42 07/01/2021



img

তারেক মাহমুদ, কালীগঞ্জ (ঝিনাইদহ) : আধুনিকতার এই যুগে যান্ত্রিক গাড়ির প্রতিযোগিতায় হারিয়েই যেতে বসেছে গ্রাম বাংলার ঐতিহ্য গরুর গাড়ি। দিন দিন কমে এর যাচ্ছে ব্যবহার। এই হারিয়ে যাওয়া ঐতিহ্যকে ধরে রাখতে এবং নতুন প্রজন্মকে জানান দিতে বৃহস্পতিবার ঝিনাইদহের কালীগঞ্জ উপজেলার প্রত্যান্ত গ্রাম সলুয়া পশ্চিমপাড়ায় অনুষ্ঠিত হয়ে গেল ঐতিহ্যবাহি গর গরুরগাড়ির দৌড় প্রতিযোগিতা।
গ্রাম বাংলার ঐতিহ্যবাহী এ প্রতিযোগিতা দেখতে হাজির হয়েছিল কয়েক হাজার দর্শক। সকাল থেকে প্রতিযোগিতা শুরু হলেও মূলপর্ব অনুষ্ঠিত হয় বিকেল চারটায়। সকাল থেকে খেলা দেখতে আশে পাশের গ্রামসহ দূরদুরান্ত থেকে নারী-পুরুষ ও শিশুরা আসতে থাকে। দুপুর গড়াতেই বিলুপ্ত প্রায় এ দৌড় প্রতিযোগিতাকে কেন্দ্র করে সৃষ্টি হয় উৎসবের আমেজ। আর রোমাঞ্চকর এই প্রতিযোগিতা ঘিরে আনন্দ মেলা ছিল বাড়তি আকর্ষণ।
কালীগঞ্জ উপজেলা কাষ্টভাঙ্গা ইউনিয়নের সলুয়া গ্রামের কয়েক তরুণের উদ্যোগে আয়োজন করা হয় এ গরুর গাড়ির দৌড় প্রতিযোগিতার। ঝিনাইদহ, যশোর, চুয়াডাঙ্গা ও মাগুরা জেলা থেকে ১৮ ব্যক্তি গরু ও গরুর গাড়ি নিয়ে প্রতিযোগিতায় অংশগ্রহণ করেন। প্রতিযোগিতা শেষে বিজয়ীদের মাঝে পুরস্কার বিতরণ করা হয়। প্রথম স্থান অধিকার করেন যশোর সদর উপজেলার দোহারপাড়া গ্রামের ইউছুপ আলী। দ্বিতীয় ঝিনাইদহের মহেশপুর উপজেলা রজন মিয়া এবং তৃতীয় স্থান অধিকার করেন কালীগঞ্জ মহিষাহাটি গ্রামের সেলিম উদ্দীন।
পুরস্কার বিতরণ অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন ঝিনাইদহের কালীগঞ্জ উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান শিবলী নোমানী। এসময় আরো উপস্থিত ছিলেন কালীগঞ্জ থানার ওসি তদন্ত মতলেবুর রহমান এবং কাষ্টভাঙ্গা ইউনিয়নের প্যানেল চেয়ারম্যান রাশেদুল ইসলাম রাশেদ।
খেলার সার্বিক তত্ত্বাবধানে ছিলেন বারোবাজার পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ মকলেছুজ্জামান। অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন কাষ্টভাঙ্গা ইউনিয়নের তিন নম্বর ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সভাপতি লুৎফর রহমান।
গরুর গাড়ির দৌড় প্রতিযোগিতার আয়োজক কমিটির অন্যতম সদস্য ইউপি মেম্বার নাসির উদ্দীন জানান, কালীগঞ্জ উপজেলায় এই প্রথম গরুর গাড়ি দৌড় প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত হলো। হারানো ঐতিহ্য ও এলাকার মানুষকে আনন্দ দিতেই এই প্রতিযোগিতার আয়োজন করা হয়।  

আরও পড়ুন