নড়াইলে মোসলেমমেলা উদ্বোধন

আপডেট: 02:28:09 23/10/2018



img

নড়াইল প্রতিনিধি : বাংলাদেশের লোকসঙ্গীতের অন্যতম ধারা জারি ও মরমী গানের পুরোধা পুরুষ জারিসম্রাট চারণকবি মোসলেম উদ্দীনের ১১৫তম জন্মজয়ন্তী ও মধুপূর্ণিমা উদযাপন উপলক্ষে নড়াইলে শুরু হয়েছে ‘মোসলেম মেলা’। চলবে দুইদিন।
সোমবার রাতে কবির জন্মস্থান সদর উপজেলার তারাপুর গ্রামে মেলা উদ্বোধন করেন নড়াইলের নবাগত জেলা প্রশাসক আনজুমান আরা।
জারিসম্রাট মোসলেম স্মৃতি পরিষদের উপদেষ্টা শরীফ হুমায়ুন কবীরের সভাপতিত্বে বিশেষ অতিথি নড়াইলের পুলিশ সুপার মোহাম্মদ জসিম উদ্দিন, জেলা আইনজীবী সমিতির সভাপতি মো. গোলাম নবী, ঢাকাস্থ নড়াইল সমিতির সভাপতি প্রকৌশলী শৈলেন্দ্রনাথ সাহা প্রমুখ উদ্বোধন অনুষ্ঠানে আলোচনা করেন।
মেলার কর্মসূচির মধ্যে রয়েছে গ্রামীণ খেলাধুলা, চারণকবির জীবন ও কর্মের ওপর আলোচনা, মোসলেমসঙ্গীত, নাটক, জারিগান, সামা মাহফিল, দোয়া অনুষ্ঠান ও শিরনি বিতরণ।
মোসলেম মেলাকে ঘিরে কবির বাড়ির আশপাশে শতাধিক দোকান বসেছে। দেশের বিভিন্ন এলাকা থেকে আসা মোসলেমভক্তদের মিলনমেলা বসেছে নিভৃত গ্রামটিতে।
মোসলেম উদ্দীন জারিগানের পাশাপাশি কবিগান, ভাবগান এমনকি ঝুমুর যাত্রাগানের অদ্বিতীয় প্রবাদপুরুষ। তিনি ২০টি জারিগানের পালা, প্রশ্ন-জবাব, ব্যঙ্গ কিংবা উপদেশ, ধুয়া গান, ভজন, বিচ্ছেদ, ভাব, ভাটিয়ালি, অষ্টক, কীর্তন, হালুই, সারি, হামদ-নাত-এ-রাসুল, খাজার গান, দেশাত্মবোধক, শ্লেষাত্মক, রণসঙ্গীত, কৃষির গান ইত্যাদি মিলিয়ে দেড় সহস্রাধিক গান রচনা করেছেন।
কর্মের স্বীকৃতি হিসেবে ১৯৬৯ সালে মোসলেম উদ্দীন ‘জারিসম্রাট’ উপাধি, ১৯৭৬ সালে ফররুখ আহমদ সাহিত্য স্বর্ণপদকসহ (গীতিকবিতায়) অনেক পুরস্কার লাভ করেছেন।
মোসলেম উদ্দিন ১৯০৪ সালের ২৪ এপ্রিল নড়াইল সদর উপজেলার তারাপুর প্রামে জন্মগ্রহণ করেন এবং ১৯৯০ সালের ১৯ আগস্ট ভক্তদের কাঁদিয়ে পৃথিবী থেকে বিদায় নেন।