ছাত্রদলের জাকির পুলিশ হেফাজতে মরেনি : আইজিপি

আপডেট: 09:12:14 15/03/2018



img

খুলনা অফিস : মহাপুলিশ পরিদর্শক (আইজিপি) ড. মোহাম্মদ জাবেদ পাটোয়ারী পুলিশি হেফাজতে মৃত্যুর ঘটনা প্রসঙ্গে বলেছেন, ‘পুলিশ হেফাজতে যদি কোনো মুত্যুর ঘটনা ঘটে, তাহলে রুলস অ্যান্ড রেগুলেশন অনুযায়ী জড়িতদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।’
তবে, সম্প্রতি ঢাকায় নিহত ছাত্রদল নেতা জাকির হোসেন মিলনের পরিবারের অভিযোগ ইঙ্গিত করে ‘জাকির পুলিশের হেফাজতে মারা যায়নি’ বলে দাবি করেন আইজিপি। বলেন, চিকিৎসাধীন অবস্থায় হাসপাতালে তার মৃত্যু হয়েছে।
বৃহস্পতিবার বিকেলে খুলনার বয়রায় পুলিশ লাইনস মাঠে মহানগর বিট পুলিশিং কার্যক্রম উদ্বোধন এবং মাদক, সন্ত্রাস ও জঙ্গিবাদবিরোধী সুধধিসমাবেশে বক্তৃতাকালে তিনি এসব কথা বলেন।
আইজিপি বলেন, ‘মাদক, সন্ত্রাস ও জঙ্গিবাদ সামাজিক সমস্যা। এসব সমস্যা সামাজিকভাবেই মোকাবেলা করতে হবে।’
‘সমাজের সকল স্টেকহোল্ডারদের নিয়ে সুধিসমাবেশ করা হচ্ছে। পুলিশের সকল ইউনিট কর্মকর্তাদের সঙ্গেও আলাপ আলোচনা করা হচ্ছে। এসব কিছুর মধ্যদিয়েই মাদক, সন্ত্রাস ও জঙ্গিবাদ নিয়ন্ত্রণে কর্মপন্থা নির্ধারণ করা হবে।’
আইজিপি বলেন, ‘মাদক, সন্ত্রাস ও জঙ্গিবাদ নিয়ন্ত্রণে পুলিশ একটি ফোর্স হিসেবে কাজ করে। কিন্তু এটি পুরোপুরি নিয়ন্ত্রণ করতে হলে পরিবার, সমাজ এবং শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানসহ সকল সামাজিক সংগঠনগুলোকে দায়িত্বশীল ভূমিকা পালন করতে হবে। এভাবে সমাজের সকল কম্পোনেন্টগুলো এগিয়ে আসলে সম্মিলিত প্রচেষ্টায় আমরা সফল হতে পারবো।’
খুলনা মেট্রোপলিটন পুলিশ (কেএমপি) কমিশনার মো. হুমায়ুন কবির সমাবেশে সভাপতিত্ব করেন।
এই অনুষ্ঠানে অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন তালুকদার আব্দুল খালেক এমপি, বেগম মন্নুজান সুফিয়ান এমপি, মিজানুর রহমান মিজান এমপি, বিভাগীয় কমিশনার লোকমান হোসেন মিয়া, রেঞ্জ ডিআইজি মো. দিদার আহম্মদ, জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান শেখ হারুনুর রশীদ ও জেলা প্রশাসক মো. আমিন উল আহসান।
এছাড়া সমাবেশে মহানগর কমিউনিটি পুলিশিং ফোরামের সভাপতি ডা. একেএম কামরুল ইসলাম, সাধারণ সম্পাদক শেখ সৈয়দ আলী, জেলা সভাপতি মকবুল হোসেন মিন্টু, অ্যাডভোকেট সাইফুল ইসলাম প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

আরও পড়ুন