মণিরামপুরে অপহৃত যুবক উদ্ধার

আপডেট: 08:38:34 15/03/2018



img

মণিরামপুর (যশোর) প্রতিনিধি : মণিরামপুর শহরের আল আমিন পার্কের সামনে থেকে বুধবার দুুপুরে এক লাখ টাকা চাঁদার দাবিতে সঞ্জিত রায় নামে এক যুবককে অপহরণ করে দুর্বৃত্তরা। অপহরণের ছয় ঘণ্টা পর পুলিশ রাজগঞ্জ থেকে অপহৃত যুবককে উদ্ধার করে। এ সময় পুলিশ সেখান থেকে সোহান নামে এক যুবককে আটক করে।
আটক সোহান যশোর সদর উপজেলার রামনগর গ্রামের আবু সাইদের ছেলে। এ ঘটনায় সঞ্জিত বাদী হয়ে বৃহস্পতিবার সকালে মণিরামপুর থানায় ছয়জনের নাম উল্লেখসহ দশজনকে আসামি করে মামলা করেছেন।
থানার এসআই তপনকুমার জানান, কেশবপুর উপজেলার কালিচরণপুর গ্রামের মনোরঞ্জন রায়ের ছেলে সঞ্জিত রায় বুধবার দুপুর ১২টার দিকে মণিরামপুর শহরের তাহেরপুর আল-আমিন পার্কে বেড়াতে আসেন। তখন স্থানীয় আল আমিন, সজল, সোহানসহ ৯-১০ জন সঞ্জিতকে জোরপূর্বক আল আমিন পার্কের পাশে কলাবাগানের মধ্যে ধরে নিয়ে যায়। সেখানে নিয়ে তার কাছে এক লাখ টাকা চাঁদা দাবি করে। এ সময় তারা সঞ্জিতের কাছে থাকা ছয় হাজার টাকা এবং একটি মোবাইল ফোন সেট ছিনিয়ে নেয়। পরে বাকি টাকা আদায়ের জন্য সঞ্জিতকে মোটরসাইকেলযোগে রাজগঞ্জ এলাকায় দিকে নিয়ে যায় তারা। খবর পেয়ে থানা ও রাজগঞ্জ পুলিশ তদন্ত কেন্দ্র থেকে পুলিশ গিয়ে রাত সাতটার দিকে অভিযান চালিয়ে রাজগঞ্জ বাজারের মাহাবুরের মার্কেট থেকে অপহৃত সঞ্জিত রায়কে উদ্ধার করে। পুলিশ এসময় সোহান নামে এক সন্ত্রাসীকে আটক করে। তবে অন্যান্য সন্ত্রাসীরা পালিয়ে যায়।
এ ঘটনায় সঞ্জিত রায় বাদী হয়ে সোহান, আল-আমিন, সজলসহ ছয়জনের নাম উল্লেখ করে চাঁদাবাজি মামলা করেন।
মামলার তদন্তকারী অফিসার এসআই তপনকুমার জানান, সোহানকে বৃহস্পতিবার সকালে আদালতের মাধ্যমে জেলহাজতে পাঠানো হয়েছে। বাকি আসামিদের আটকের জন্য পুলিশি অভিযান চালাচ্ছে।

আরও পড়ুন