হাসপাতালে চিকিৎসা নিচ্ছেন পরিবারের পাঁচজন

আপডেট: 05:26:56 05/09/2019



img

স্টাফ রিপোর্টার : ডেঙ্গু রোগে আক্রান্ত হয়ে বাঘারপাড়া উপজেলার মনোহর গ্রামের একই পরিবারের সদস্য ও প্রতিবেশী মিলিয়ে মোট ৫জন চিকিৎসা নিচ্ছেন যশোর জেনারেল হাসপাতালে। এরআগে আরও চারজন চিকিৎসা নিয়ে বাড়ি ফিরে গেছেন তাদের স্বজনরা।
চিকিৎসা নিয়ে সুস্থ বাঘারপাড়া উপজেলার মনোহর এলাকার সুদিপ্ত সাহা বলেন, দিন ১৫ আগে আমি প্রথম ডেঙ্গু আক্রান্ত হয়ে জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি হই। এরপর দু-তিনজন করে স্বজনসহ আমার প্রতিবেশী মোট ৯জন ডেঙ্গু আক্রান্ত হন। তাদের মধ্যে বর্তমানে আমার কাকি, কাকা, দাদা, ভাইঝিসহ ৫জন হাসপাতালে ভর্তি রয়েছেন। এরআগে চিকিৎসা নিয়ে বাড়ি ফিরে গেছেন কাকাতবোন, বৌদিসহ আরও তিনজন।
জেনারেল হাসপাতালের আরএমও ডা. আরিফ আহমেদ বলেন, ডেঙ্গু আক্রান্ত যেসব রোগী হাসপাতালে রয়েছেন, তাদের অধিকাংশেরই অবস্থা ভাল। এক পরিবারের বেশ কয়েকজন সদস্য চিকিৎসাধীন রয়েছেন।
তিনি বলেন, সকলের জন্যে একটিমাত্র পরামর্শ দিনেরাতে যখনই ঘুমান না কেন- মশারি টাঙানো বাধ্যতামূলক। ভোর কিংবা সন্ধ্যা নয়, যেকোনও সময়ই মশা কামড়াতে পারে।
অধিক সচেতনতায় এই রোগ থেকে মুক্তি পাওয়া যাবে মন্তব্য করে তিনি বলেন, পৌরসভা কিংবা ইউনিয়ন পর্যায়ে মশানিধনে যে ওষুধ ছিটানো হচ্ছে, তাদের সহযোগিতা নিয়ে প্রজননক্ষেত্রগুলোতে ওষুধ ছিটালে মশার উপদ্রব থেকে রক্ষা পাওয়া যাবে।
এদিকে, গত ২৪ ঘণ্টায় এ জেলায় ভর্তি হয়েছে ৬৪জন রোগী। যা গতকালের তুলনায় ৭জন বেশি। সবমিলিয়ে যশোর জেনারেল হাসপাতালসহ বিভিন্ন হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছে ২০৯ জন।
যশোর সিভিল সার্জন অফিস সূত্রে জানা গেছে, এ পর্যন্ত যশোর জেলায় মোট এক হাজার ৬১৫ জন ডেঙ্গু রোগী শনাক্ত হয়েছে। এরমধ্যে চিকিৎসা নিয়ে সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরে গেছেন এক হাজার ৪০৬ জন। আর বর্তমানে চিকিৎসাধীন রয়েছেন ২০৯ জন। যার মধ্যে যশোর জেনারেল হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন ৭৮জন, ৮টি উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ১০৩ জন ও বেসরকারি হাসপাতালে ২৮ জন।

আরও পড়ুন